রাষ্ট্রীয় মালিকানাধীন জনতা ব্যাংকে নতুন চেয়ারম্যান নিয়োগ দেওয়া হয়েছে। বুধবার সন্ধ্যায় ওই পদে দায়িত্ব নিয়েছেন ব্যাংকটির পরিচালক লুনা শামসুদ্দোহা। বাংলাদেশের ইতিহাসে রাষ্ট্রায়ত্ত কোনো বাণিজ্যিক কিংবা বিশেষায়িত ব্যাংকে তিনিই প্রথম নারী চেয়ারম্যান।

বুধবার ব্যাংকের পরিচালনা পর্ষদের সভায় লুনা শামসুদ্দোহাকে নতুন চেয়ারম্যান হিসেবে নিয়োগ দেয়া হয়। এর আগে গত ২৫ ফেব্রুয়ারি সাবেক সিনিয়র সচিব হেদায়েতুল্লাহ আল মামুনকে জনতা ব্যাংকের নতুন চেয়ারম্যান হিসেবে নিয়োগের আদেশ জারি করেছিল অর্থ মন্ত্রণালয়ের আর্থিক প্রতিষ্ঠান বিভাগ।


বাংলাদেশ ব্যাংকের অনাপত্তি পেলেই তার যোগ দেওয়ার কথা ছিল। কিন্তু বাংলাদেশ ব্যাংক তাকে অনাপত্তি না দিয়ে লুনা শামসুদ্দোহাকে অনাপত্তিপত্র দেয়। ২০১৬ সালের জুন থেকে লুনা শামসুদ্দোহা জনতা ব্যাংকের পরিচালকের দায়িত্ব পালন করে আসছিলেন। এর আগে ২০০৯ থেকে ২০১২ সাল পর্যন্ত তিনি রাষ্ট্রায়ত্ত আরেক ব্যাংক অগ্রণী ব্যাংকের পরিচালকের দায়িত্ব পালন করেন।

লুনা সামসুদ্দোহা ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগ হতে ১৯৭৮ সালে এমএ ডিগ্রী অর্জনের পর একই বিশ্ববিদ্যালয়ের আধুনিক ভাষা ইনস্টিটিউটে প্রভাষক হিসেবে কর্মজীবন শুরু করেন। জনতা ব্যাংকের নতুন চেয়ারম্যান লুনা শামসুদ্দোহা ২০১৩ সালে প্রযুক্তি খাতে নারীদের এগিয়ে নিয়ে যাওয়া এবং নারীর ক্ষমতায়ন বৃদ্ধির কারণে গ্লোবাল উইমেন ইনভেন্টরস অ্যান্ড ইনোভেটরস নেটওয়ার্ক (গুইন) সম্মাননা পান।

তিনি দোহাটেক নিউ মিডিয়ার চেয়ারম্যান এবং বাংলাদেশ উইমেন ইন টেকনোলজিরও প্রেসিডেন্ট ছিলেন। এছাড়া বাংলাদেশ বিজনেস ম্যাগাজিনের প্রতিষ্ঠাতা, সফটওয়্যার উদ্যোক্তা এবং সুইজারল্যান্ডের গ্লোবাল থট লিডার অন ইনক্লুসিভ গ্রোথের সদস্য তিনি। তার প্রতিষ্ঠান সরকারি বিভিন্ন প্রতিষ্ঠানের গভর্নেন্স প্রকল্পের সঙ্গে যুক্ত, এর মধ্যে ই-জিপি সিস্টেম অন্যতম। ২০০৭-০৮ সালে তিনি জাতীয় পরিচয়পত্র তৈরিতেও গুরুত্বপূর্ণ অবদান রাখেন।

প্রসঙ্গত, জনতা ব্যাংকের চেয়ারম্যান হিসেবে গত তিন বছর দায়িত্বে ছিলেন প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের সাবেক মুখ্য সচিব শেখ মো. ওয়াহিদ-উজ-জামান। গত ৭ ডিসেম্বর তার মেয়াদ শেষ হয়।

You Might Also Like

Leave A Comment

Don’t worry ! Your email address will not be published. Required fields are marked (*).