রাজধানীর পশ্চিম নাখালপাড়ায় ‘জঙ্গি আস্তানা’ সন্দেহে রুবি ভিলা নামে একটি বাড়ি ঘিরে র‌্যাবের অভিযানে তিন জঙ্গি নিহত হয়েছে। এছাড়া র‌্যাবের দুই সদস্য আহত হয়েছে। বাড়িটি থেকে গ্রেনেড, সুইসাইডাল ভেল্ট ও পিস্তল উদ্ধার করা হয়েছে।

র‌্যাব মহাপরিচালক (ডিজি) বেনজীর আহমেদ বলেন, বাড়িটির ভেতরে তিন জঙ্গির মরদেহ পাওয়া গেছে। সম্ভবত তারা গ্রেনেডের বিস্ফোরণ ঘটিয়ে অাত্মহত্যা করছেন।


বেনজির অাহমেদ অারও বলেন, জঙ্গিরা জাহিদ নামের একটি জাতীয় পরিচয়পত্র ব্যবহার করে বাসাটি ভাড়া নেয়। তবে বাড়িতে অারও একটি জাতীয় পরিচয়পত্র পাওয়া গেছে। দুইটি কার্ডেরই ছবি একটি, নাম দুটি। অামাদের মনে হচ্ছে তারা ভুয়া অাইডি কার্ড ব্যবহার করে বাসাটি ভাড়া নিয়েছে। গত ৪ জানুয়ারি তারা জাহিদ পরিচয়ে বাসাটা ভাড়া নেয়। নিহতরা সবাই ২০-৩০ বছরের যুবক।

শুক্রবার মধ্যরাতে জঙ্গি আস্তানা সন্দেহে পশ্চিম নাখালপাড়ার ৬ তলা একটি বাড়ি ঘিরে অভিযান শুরু করে র‌্যাব। অভিযান চলাকালে ভেতরে ৫ তলা থেকে বিস্ফোরণের শব্দ শোনা যায়। সকাল ৭টার দিকে র‌্যাবের বোমা নিষ্ক্রিয়করণ দল ঘটনাস্থলে কাজ শুরু করে।

র‌্যাব সদর দফতরের লিগ্যাল অ্যান্ড মিডিয়া উইংয়ের পরিচালক মুফতি মাহমুদ খান জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে জানা যায় জঙ্গিরা নাখালপাড়ায় অবস্থান নিয়ে নাশকতার পরিকল্পনা করছে। মধ্যরাতে রুবি ভিলায় অভিযান শুরু করে র‌্যাব। মেইনগেইট ভেঙে ফেলা হয়। পুরো ভবনে ৬৫ জন বাসিন্দা রয়েছে। তাদের নিরাপদে সরিয়ে নেয়া হয়েছে। ‘জঙ্গি আস্তানা’ এলাকায় নিরাপত্তার স্বার্থে চলাচল বন্ধ রয়েছে। জিজ্ঞাসাবাদের জন্য বেশ কয়েকজনকে আটক করে র‌্যাব হেফাজতে নেয়া হয়েছে।

মুফতি মাহমুদ খান বলেন, অভিযানে দুেই র‌্যাব সদস্য আহত হয়েছেন। একজনের শরীরে গ্রেনেডের স্প্রিন্টার বিদ্ধ হয়েছে। দু’জনকেই হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

You Might Also Like

Leave A Comment

Don’t worry ! Your email address will not be published. Required fields are marked (*).